আইটিপুর – সফটওয়্যার ডেভোলপমেন্ট স্কুল, এই শিরোনামে একটি ব্যতিক্রমধর্মী স্কুলের যাত্রা শুরু হয়েছে। ইস্টার্ন আই.টি. লিমিটেড তাদের একটি সহযোগী প্রতিষ্ঠান হিসেবে এই আইটিপুর এর কার্যক্রম শুরু করেছে। গতকাল বিকেলে মালিবাগে তাদের নিজস্ব অফিসে এই স্কুলের শুভ উদ্বোধন করা হয়। অনুষ্ঠানে প্রথম ব্যাচের ছাত্রবৃন্দ এবং প্রতিষ্ঠানের উদ্যেক্তরা উপস্থিত ছিলেন।

যে সমস্ত ছাত্র-ছাত্রীরা পড়াশুনা শেষ করেছে কিংবা পড়াশুনার পাশাপাশি সফটওয়্যার শিখতে চায়, তাদের জন্য আইটিপুর এর এই আয়োজন। প্রতিষ্ঠানটি সি শার্প, এ.এস.পি ডট নেট এবং এস.কিউ.এল সার্ভার এর উপর ৩টি সেমিস্টার এ ৩২টি ক্লাসের একটি শর্ট কোর্স এর আয়োজন করেছে । দক্ষ সফটওয়্যার প্রোগ্রামারদের আন্তরিক প্রচেষ্টায় প্রতিটি ছাত্র-ছাত্রীদের তাদের কাঙ্খিত লক্ষ্য পূরণে আইটিপুর অঙ্গিকারবদ্ধ।

ইস্টার্ন আই.টি.লিমিটেড এর ম্যানেজিং পার্টনার আনোয়ারুল ইসলাম বলেন, আমরা আমাদের প্রতিষ্ঠানের মেধাকে সবার মাঝে বিলিয়ে দিতে চায়। শুধুমাত্র সফটওয়্যার তৈরির মধ্যে সীমাবদ্ধ না থেকে আইটিতে দেশের দক্ষ কারিগর তৈরির কাজটিও পাশাপাশি করে যেতে চায়।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রতিষ্ঠানের প্রধান কর্ণধার মোঃ ওয়াহিদুর রেজা বলেন, আমাদের ভবিষ্যত প্রজন্মকে দক্ষ এবং যুগোপযোগী কম্পিউটার প্রোগ্রামার বানানোর জন্য একটি প্ল্যাটফর্ম বানানোর পরিকল্পনা করছিলাম অনেকদিন থেকেই এবং দেরীতে হলেও আজ থেকে তা শুরু করতে পারলাম এই জন্য আল্লাহর দরবারে হাজারো শুকরিয়া। কম্পিউটার সায়েন্স এর অনার্স এবং মাস্টার্স এর সিলেবাস পুরোপুরি থিরিওটিক্যাল হবার ফলে তারা ব্যবহারিকভাবে কাজ করবার তেমন সুযোগ পায় না যার ফলে চাকরির বাজারে এসে ধুকতে থাকে অনেকদিন। তিনি বলেন, আমরা তাদের জন্য এই দরজা খোলা রেখেছি যাতে তারা চাকরিতে প্রবেশের পূর্বে স্বল্প সময়ে নিজেদের তৈরির করে নিতে পারে।

কুড়িগ্রাম পলিটেকনিক এর কম্পিউটার টেকনোলজীর অষ্টম সেমিস্টার এর ছাত্র শরিফুল ইসলাম। ইন্ডাস্ট্রীয়াল এটাচমেন্ট করতে ঢাকায় আসেন এবং আইটিপুর এর প্রথম ব্যাচে ভর্তি হন। তিনি বলেন, আমি অনেক গর্বিত যে আইটিপুর এর প্রথম ব্যাচে ভর্তি হতে পেরেছি। এখানকার সবচেয়ে বড় সুবিধাটি হলো আইটিপুর একটি স্বনামধন্য সফটওয়্যার কোম্পানী দ্বারা পরিচালিত এবং এখানকার শিক্ষকগণ সবাই বিভিন্ন সফটওয়্যার কোম্পানীর অভিজ্ঞ কম্পিউটার ইঞ্জিনিয়ার। আমরা আশা করছি এখান থেকে ভালো কিছু শিখতে পারবো।

প্রতিমাসে দশজনের একটি করে ব্যাচ শুরু হবে মাসের প্রথম সপ্তাহে। ভিজিট করতে ক্লিক করুনঃhttp://www.itpur.com.bd